ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিব ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • রোববার   ১৭ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ১ ১৪২৮

  • || ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

দৈনিক নেত্রকোনা

বারহাট্টায় পথ নাটক ও লোকসঙ্গীতের অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত

দৈনিক নেত্রকোনা

প্রকাশিত: ৩০ এপ্রিল ২০১৯  

নেত্রকোনার বারহাট্টায় ধর্মীয় চরমপন্থী প্রতিরোধে অনুষ্ঠিত হচ্ছে পথনাটক “সমতার লড়াই” ও লোকসঙ্গীতের অনুষ্ঠান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় একটি বৈষম্যহীন সমাজ, যেখানে ক্ষমতায়নের মাধ্যমে নারীর প্রকৃত মুক্তির লক্ষ্যকে সামনে রেখে বাংলাদেশ নারী প্রগতি সংঘ (বিএনপিএস) নামক একটি বেসরকারী উন্নয়ন সংগঠন তিন দশকেরও অধিক সময় যাবৎ পরিচালনা করছে নানামুখি উন্নয়ন কার্যক্রম। নানা চড়াই উৎরাই এর মধ্য দিয়েও এগিয়ে যাওয়া বাংলাদেশের অনেক অর্জন ইতোমধ্যোই দেশ বিদেশে প্রশংসিত। কিন্তু এতকিছুর পরও সামগ্রিকভাবে নারীমুক্তির পথে বাংলাদেশকে হাটতে হবে বহুদুর। কারণ ধর্মীয় আর সহিংস চরমপন্থা, বৈচিত্রময়তা আর পরমতসহিষ্ণুতার অভাবে প্রায়শই বাঁধাগ্রস্থ হচ্ছে আমাদের উন্নয়নযাত্রা। কাজেই এই বাঁধা অতিক্রম করে সহিংস চরমপন্থার বিপরীতে শান্তি, সম্প্রীতি, পরমতসহিষ্ণুতা এবং বৈচিত্র্যময় মূল্যবোধ প্রতিষ্ঠার জন্য সমাজের সর্বস্থরে সচেতনতা ও জ্ঞান বৃদ্ধি করে ধর্মীয় চরমপন্থা প্রতিরোধে পরিবারে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ও সামাজিক নেটওয়ার্কে ভূমিকা রাখার ব্যাপারে সাধারণ মানুষ বিশেষ করে তরুন জনগোষ্ঠীকে উৎসাহিত ও উদ্বুদ্ধ করার লক্ষ্যকে সামনে রেখে বাংলাদেশ নারী প্রগতি সংঘ (বিএনপিএস) ধর্মভিত্তিক সহিংস চরমপন্থা প্রতিরোধের লক্ষ্যে নেত্রকোনা জেলার বারহাট্টা উপজেলায় বিভিন্ন স্কুল ও কমিউনিটিতে ইউএনডিইএফ এর সহযোগিতায় শুরু করেছে উগ্রবাদ প্রশমনে সচেতনতামুলক লোকসঙ্গীত ও পথ নাটক। ২৫ এপ্রিল ২০১৯ তারিখ শুরু হয়ে ২৮ এপ্রিল বিকালে গেরিয়া ননীগোপাল মঞ্জুশ্রী উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে বারহাট্টা উপজেলায় অনুষ্ঠিত হয়েছে ৪র্থ ও শেষ প্রদর্শনী। ২৮ এপ্রিল সমাপনী দিনে গেরিয়া ননীগোপাল মঞ্জুশ্রী উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে নাটক ও গানের পূর্বে সংক্ষিপ্ত আলোচনা পর্বে বক্তব্য রাখেন বিএনপিএস’র বারহাট্টা কেন্দ্র ব্যবস্থাপক সুরজিত কুমার ভৌমিক, কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি সুমিত বণিক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা নূর উদ্দিন| মুক্তিযুদ্ধের চেতনা, সংবিধানের আলোকে সকল মানুষের সমান অধিকার ও ধর্মনিরপেক্ষতা, সমনাগরিকত্ব, বৈচিত্র্যময়তা ও বহুত্ববাদী সমাজ, পারস্পরিক সহিষ্ণুতা, উগ্রবাদ ও সহিংস চরমপন্থার নেতিবাচক প্রভাব, ধর্মনিরপেক্ষ সংস্কৃতির চর্চা বৃদ্ধি ও যুবসমাজের ভূমিকা চিহ্নিত করার কথাই উচ্চারিত হয়েছে গানে ও নাটকের কথায় । অনুষ্ঠানে স্কুলের শিক্ষার্থীসহ সমাজের বিভিন্ন শ্রেনীপেশার প্রায় ৫ শতাধিক মানুষ অংশগ্রহণ করে আগ্রহ সহকারে অনুষ্ঠান উপভোগ করেছেন।