ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিব ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • শুক্রবার   ২২ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ৬ ১৪২৮

  • || ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

দৈনিক নেত্রকোনা

নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থার শিক্ষা উপকরন ও শীত বস্ত্র বিরতণ

দৈনিক নেত্রকোনা

প্রকাশিত: ৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯  

জেলার খালিয়াজুরী উপজেলার নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থার উদ্যোগে বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজসেবী দেবেশ তালুকদারের আর্থিক সহযোগীতায় শুক্রবার দুপুরে নগর ইউনিয়নের নয়াগাও বাজারে আর্থ মানবতার সেবায় হাওরপাড়ের অসহায় দুঃস্থ শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ ও শীত বস্ত্র (কম্বল) বিতরণ করা হয়েছে। নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থার সাধরণ সম্পাদক আনন্দমোহন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের এম এ অধ্যয়নরত নিশিকান্ত সরকারের সভাপতিত্বে এসব অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন খালিয়াজুরী উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি শফিকুল ইসলাম তালুকদার ও সাধারন সম্পাদক স্বাগত সরকার শুভ। নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থার কার্যক্রমের চিত্র তুলে ধরে উপদেষ্টা রবীন্দ্র সরকার স্বাগত বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানে ১০০ জন অসহায়, গরীব ও দুঃস্থ শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরন-খাতা, কলম, স্কুল ব্যাগ, জ্যামিতি বক্স, স্কেল ও শীত বস্ত্র (কম্বল) বিতরণ করা হয়। বিশেষ অতিথি উপজেলা প্রেসক্লাব সভাপতি শফিকুল ইসলাম তালুকদার বলেন, হাওরপাড়ের এই নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থা নগর ইউনিয়নের দরিদ্র ছাত্র-ছাত্রী ও সুবিধাবঞ্চিত মানুষের জীবনমান উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। এই সংস্থাটি ইতোমধ্যে ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে গীতা একাডেমী স্কুল, দরিদ্র শিক্ষার্থীদের আর্থিক সহায়তা ও বিভিন্ন গ্রামের শীতার্তদের শীত বস্ত্র বিতরণ করে অসহায় মানুষের পাশে দাড়িয়েছে। তাদের এই মহতি উদ্যোগে সত্যিই প্রশংসার দাবি রাখে। তিনি নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থার এই সেবামূলক কার্যক্রম অব্যাহত রাখার আহ্বান জানান এবং সংস্থাকে সার্বিক সহযোগীতা ও পাশে থাকার আশ্বাস প্রদান করেন। একান্তভাবে আলাপকালে সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান উপদেষ্টা দেবেশ তালুকদার ওই প্রতিনিধিকে জানান এলাকার কিছু কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়–য়া প্রগতিশীল বন্ধুদের সঙ্গে নিয়ে নগর শিক্ষা কল্যাণ সংস্থা গঠন করে অবহেলিত উপজেলার উপেক্ষীত নগর ইউনিয়নের সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের শিক্ষা উপকরন, আর্থিক সহায়তা প্রদানসহ হিন্দু ধর্মাবলম্বী বৃদ্ধদের মাঝে ধর্মীয় শিক্ষার আলো ছড়িয়ে দিতে গ্রামে গ্রামে গীতা একাডেমি কার্যক্রম শুরু করি। বর্তমানে আমাদের প্রতি শুক্রবারে ১০টি গ্রামে গীতা পাঠদান কার্যক্রম পরিচালনা অব্যাহত রয়েছে।