ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিব ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • বৃহস্পতিবার   ০৯ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২৫ ১৪২৬

  • || ১৫ শা'বান ১৪৪১

১০০

১৬ অভাবগ্রস্তকে ভারতে নিয়ে কিডনি বিক্রি

দৈনিক নেত্রকোনা

প্রকাশিত: ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

অভাবে প্রথমে নিজের কিডনি বিক্রি করেন। পরে নিজেই কিডনি পাচারকারী চক্রের সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন। নেত্রকোনা-ময়মনসিংহ সড়ক থেকে নাজিম নামে এমন এক কিডনি পাচারকারীকে আটক করেছে পুলিশ।

কিডনি বিক্রিতে সম্মতি দেয়া ব্যক্তির একটি পাসপোর্টসহ তাকে আটক করা হয়। আটক নাজিমের বিরুদ্ধে অভাবগ্রস্ত ১৬ বাংলাদেশিকে ভারতে নিয়ে কিডনি বিক্রির অভিযোগ রয়েছে।

নাজিম উদ্দিন নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলার শানখলা গ্রামের উমেদ আলীর ছেলে। গত শনিবার রাতে তাকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আটকের পর রোববার আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।

দেশে দিনে দিনে বাড়ছে কিডনি রোগীর সংখ্যা। এ বিষয়টি টার্গেট করে গড়ে উঠেছে কিডনি পাচারকারী চক্র। নাজিম সে চক্রের সদস্য বলে জানিয়েছে পুলিশ।

জানা যায়, নাজিম গত কয়েক বছরে তার এলাকার অভাবগ্রস্ত কমপক্ষে ১৬ জন বাংলাদেশিকে ভারতে নিয়ে কিডনি বিক্রি করিয়েছেন। আর সেই কিডনি বিক্রির টাকায় মোটা অংকের ভাগ বসিয়েছেন।

অভাবগ্রস্ত বাংলাদেশিরা হলেন-শানখশা গ্রামের সুজন মিয়ার স্ত্রী মেহেরা খাতুন, ছেলে নূর আলম, একই গ্রামের আমির উদ্দিনের ছেলে এয়ারখান, কুদরত আলীর ছেলে সফিকুল ইসলাম, আসন আলীর ছেলে আলাল উদ্দিন, উমেদ আলীর ছেলে নাজিম উদ্দিন (আটক), তার স্ত্রী ও তার বোন ফচিকা গ্রামের শাহীদা খাতুন, শানখলা গ্রামের উমর আলীর ছেলে আব্দুর রশিদ, একই গ্রামের আবুল কাশেমের স্ত্রী রুমা আক্তার, হবিবপুর গ্রামের লাল মিয়ার ছেলে নাসির উদ্দিন, একই গ্রামের তোতা ফকিরের ছেলে রমজান আলী ও মহেন্দ্রপুর গ্রামের আব্দুল খালেকের ছেলে খোকন মিয়া। বর্তমানে কিডনি বিক্রি করতে ভারতে আছেন শানখলা গ্রামের সবুজ মিয়ার স্ত্রী সেলিনা খাতুন।

নেত্রকোনা ডিবি পুলিশের ওসি শাহ্ নূর এ আলম জানান, নাজিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে পৃথক আইনে দুটি মামলা হয়েছে। এসব মামলায় তাকে আদালতে পাঠানো হয়। আদালত তাকে কারাগারে পাঠিয়েছে।

এসপি মো. আকবর আলী মুনসী জানান, কিডনি পাচারকারী নাজিমের কাছ থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া গেছে। তার দেয়া তথ্যানুযায়ী পাচারকারী চক্রের বাকি সদস্যদের আটকে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

দৈনিক নেত্রকোনা
দৈনিক নেত্রকোনা
নেত্রকোনা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর