ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিব ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • সোমবার   ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ৫ ১৪২৭

  • || ০৩ সফর ১৪৪২

দৈনিক নেত্রকোনা
১৪১

কম খরচে ‘ভ্যালেনটাইন ডে’ কাটানোর দারুণ কৌশল!

দৈনিক নেত্রকোনা

প্রকাশিত: ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

অবশেষে আসছে কাঙ্ক্ষিত সেই দিন। ভালোবাসা দিবস! সব প্রেমিক-প্রেমিকারাই অধীর আগ্রহে অপেক্ষায় থাকেন এই দিনটির জন্য। কীভাবে উদযাপন করবেন এই দিনটি, তা নিয়ে চিন্তার শেষ থাকে না।

ফেব্রুয়ারিতেই রয়েছে রোজ ডে, টেডি ডে, হাগ ডে, ফালগুন ও ভ্যালেনটাইন ডে। একসঙ্গে এতগুলো বিশেষ দিন এক মাসের মধ্যেই! তাই পকেট ফাঁকা হওয়াটাই স্বাভাবিক। বাকি দিনগুলো যেমন তেমন কাটালেও, ভালোবাসা দিবসটি কোনোভাবেই হেলা করার নয়। তাই এর জন্য আগে থেকেই প্রস্তুতি থাকা প্রয়োজন।

 

ভালোবাসা দিবস

ভালোবাসা দিবস

এদিন শুধু রোম্যান্টিকতাই নয়, সঙ্গে নজর দিতে হয় উপহারের দিকেও। সেই সঙ্গে থাকতে হবে ঘোরা-ফেরা আর নানা রকম মুখরোচক খাওয়া-দাওয়ার পরিকল্পনাও। তাই অবশ্যই জানা প্রয়োজন কম খরচে ভালোবাসা দিবসটিকে সুন্দর করে তোলার দারুণ কয়েকটি কৌশল। যে বিষয়গুলো মাথায় রাখলে রথ দেখা ও কলা বেঁচা একসঙ্গেই হবে। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক সেগুলো-  

> সকাল থেকেই শুরু করুন তাকে “স্পেশাল ফিল” করানোর চেষ্টা। কারণ কথায় বলে, “দ্য মর্নিং শোজ দ্য ডে”! তবে দামি ফুলের গুচ্ছ দিয়ে নয়। ঘুম ভাঙ্গান ফোন করে, মিষ্টি কথায়।

> যতই বাজেট কাটিং করুন, সময় কাটিং কিন্তু একেবারেই চলবে না। সম্পূর্ণ দিনটি দিয়ে দিন প্রিয় মানুষটিকে। আর কোনো কফি শপে নয়, চলে যান আপনাদের দু’জনের স্পেশাল কোনো জায়গায়। যেখানে হয়তো আপনারা প্রথম দুজন-দুজনকে দেখেছিলেন কিংবা প্রপোজ করেছিলেন।

 

ভালোবাসা দিবস

ভালোবাসা দিবস

> এ দিনে উপহার তো দিতেই হবে। তবে উপহার মানেই কিন্তু দামি নয়। এমন কিছু দিন যা স্পেশাল হয়ে থাকবে। যেমন- একজোড়া পাওয়া যায় এমন কিছু। কিংবা নিজের বানানো কিছু। এখন তো অনেক সফটওয়্যার রয়েছে আপনার স্মার্টফোনেই। ছবি কিংবা ভিডিও কোলাজ করে উপহার দিতে পারেন। তবে অবশ্যই সঙ্গে রাখবেন ফুল, সেটা বাড়ির বাগানেরও হতে পারে।

> দামি রেঁস্তোরার আলো-আঁধারিতে নয়, এবার প্রেম দিবসের পেটপূজাটা সেরে নিতে পারেন নিজেদের তৈরি করা রান্না দিয়েই। একসঙ্গে রান্না করলে দুজনে অনেকটা সময়ও একসঙ্গে কাটাতে পারবেন। তবে একান্তই যদি রান্নায় উৎসাহ না থাকে, তাহলে বিশেষ কোনো স্ট্রিট ফুডও কিন্তু সস্তায় প্রেম জমাতে ওস্তাদ। তাই এই অপশনটাও আপনার জন্য খোলা রয়েছে।

> কথায় আছে, “সব ভালো যার শেষ ভালো তার!” তাই দিনটা যখন শেষের পথে এমন কিছু লাভ ডোজ দিয়ে তাকে চমকে দিন। যেমন, প্রমিস করতে পারেন পরের পাঁচটা উইকেন্ড একসঙ্গে কাটাবেন।

লাইফস্টাইল বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর